নববর্ষে বৈশাখী সাজ | পহেলা বৈশাখ, ১৪২৫ 0 1140

pohela boishakh makeup

নানা রঙে, নানা রুপে আবার এলো পহেলা বৈশাখ

দেখতে দেখতে আরেকটা বছর চলে গেল। চলে এল ১৪২৫ সন।  প্রকৃতি যেন অধীর আগ্রহে গ্রীষ্মের আগমনের অপেক্ষা করছে। একটু খেয়াল করলেই দেখা যাবে গাছে গাছে ফুটেছে আমের মুকুল। রোদের তাপটাও যেন আস্তে আস্তে প্রখর হয়ে উঠছে। প্রকৃতির সাথে চলছে মানুষেরও নিজেদেরকে নতুন আঙ্গিকে দেখার প্রস্তুতি। পহেলা বৈশাখ উপলক্ষ্যে অনেকেই হয়ত এরই মধ্যে বন্ধুদের সাথে ঘুরে বেড়ানোর পরিকল্পনা করেছেন, আবার অনেকেই হয়ত পরিবার পরিজনদের সাথে নিরিবিলি সময় কাটানোর কথা ভাবছেন। প্ল্যান যাই হোক, উৎসবের আমেজ অনুভব করতে সাজসজ্জা আর পোশাক-আশাক বিশাল একটা ভূমিকা পালন করে। তাই আজকে আমি আপনাদেরকে জানিয়ে দেব বৈশাখী ফ্যাশনের নানান আইডিয়া।

pohela boishakh online

বছরের প্রথম দিন নারীরা বেছে নিতে পারেন হালকা রঙের কটন, কোটা বা সিল্কের আটপৌরে শাড়ি কিংবা সালোয়ার কামিজ। এছাড়া ফ্যাশন সচেতন তরুণীরা পরতে পারেন কুর্তি। গ্রীষ্মের তীব্র দাবদাহে এসব রঙ এনে দিতে পারে স্বস্তি। বেছে নিতে পারেন হালকা গোলাপি, হালকা সবুজ কিংবা চিরাচরিত লাল পেড়ে সাদা শাড়ি। দিনের বেলার সাজের জন্য ট্রাই করতে পারেন ট্রেন্ডি “নো-মেকাপ” মেকাপ। হালকা কমপ্যাক্ট পাউডার, মাস্কারা, ব্লাশন এবং ন্যুড লিপস্টিক দিয়ে পেতে পারেন স্নিগ্ধ, নমনীয় একটা লুক। যদি গ্ল্যামারাস লুক চান সেক্ষেত্রে রাতের বেলার অনুষ্ঠানে জমকালো সাজে হয়ে উঠতে পারেন অনন্যা। ব্যবহার করতে পারেন আইশ্যাডো, হাইলাইটার এবং গাঢ়  লিপস্টিক আর পরতে পারেন জামদানী বা কাতান শাড়ি।

হালকা গহনা আপনার সাজ পরিপূর্ণ করে তুলবে। পরতে পারেন হাতভর্তি কাঁচের চুড়ি আর সাথে সিলভার বা গোল্ড ঝুমকা, ছোট- বড় রিং, সিম্পল চেন বা নেকলেস। সাজে কিছুটা অন্য মাত্রা যোগ করতে চুলে জড়িয়ে নিতে পারেন একগুচ্ছ সুবাসিত ফুল কিংবা হেয়ার স্ট্রেটনার বা কার্লার দিয়ে করে নিতে পারেন সুন্দর সব হেয়ারস্টাইল। এই ছাড়া পোশাকের অনুষঙ্গ হিসেবে মানানসই ব্যাগ, আরামদায়ক জুতো, সানগ্লাস আর মিষ্টি গন্ধের পারফিউম নাহলে আউটফিট অপূর্ণ রয়ে যায়।

বছরের প্রথম দিন নারীদের পাশাপাশি পুরুষরাও নানান রকম সাজপোশাকে নিজেদের রুচি উপস্থাপন করতে পারেন। এ ক্ষেত্রে বেছে নিতে পারেন পাঞ্জাবী, কিংবা একটু ভিন্নধর্মী ফতুয়া বা খাটো পাঞ্জাবী এবং সাথে পরতে পারেন ক্লাসিক জিনস বা পায়জামা। ট্রেডিশনাল লুকে ভিন্নতা আনতে বেছে নিন স্টাইলিশ ঘড়ি, সানগ্লাস আর স্লিপার। নানান ধরনের হেয়ার জেল এবং হেয়ার মুজ ব্যবহার করে পুরুষরাও করতে পারেন নানান হেয়ারস্টাইল।

অবশেষে, স্ক্রিনের সামনে বসে যদি এখন আপনার মনে হয়, নিজেকে সাজানোর অনেক প্রোডাক্টই আপনার কাছে নেই আর হাতে অঢেল সময়ও নেই দোকানে দোকানে ঘুরে কেনা কাটা করার মতো তাহলে একদম মন খারাপ না করে চলে যান দারাজ ওয়েবসাইটে (daraz.com.bd) এবং ঘরে বসে এক ক্লিকেই সেরে ফেলুন পহেলা বৈশাখ ১৪২৫ কে স্বাগত জানানোর প্রস্তুতি। সেরা দামে সেরা পণ্যগুলো আপনার জন্যই নিয়ে এসেছে দারাজ অনলাইন শপ।

 

পহেলা বৈশাখ সম্পর্কে আরও পড়ুনঃ

পহেলা বৈশাখের ইতিহাস ও বর্তমান

Previous ArticleNext Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

css.php