know about the mind healing websites

কোয়ারেন্টিনে যে ৭টি মজার ওয়েবসাইট সঙ্গী হতে পারে আপনার (পর্ব-২)

গত কয়েকদিনে বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে কোভিড-১৯ বা করোনা ভাইরাস। যেহেতু এই মারাত্নক ভাইরাসটি সহজেই মানুষে মানুষে সংক্রমণ ঘটাতে পারে- তাই নিজের ও আশেপাশের সবার নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে আমাদের উচিৎ খুব জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাসার বাইরে না বের হওয়া বা নিজ নিজ ঘরে কোয়ারেন্টিনে থাকা। কোয়ারেন্টিন মানে হচ্ছে বিচ্ছিন্ন থাকা। কিন্তু বর্তমান ডিজিটাল যুগে আমাদের সুযোগ আছে বিচ্ছিন্ন থেকেও ইন্টারনেটের মাধ্যমে সময় কাটানোর। তাই বিরক্ত বা হতাশ না হয়ে অনলাইনের বিভিন্ন মজার ও আজব ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে নিজেকে চাঙ্গা রাখতে পারেন।

চলুন এক নজরে দেখে নেওয়া যাক ঘরে বসেও সুন্দর সময় কাটানোর মতো ১০টি অসাধারণ ওয়েবসাইট-

1) News of Future

news of future

আপনি যদি বর্তমান সময়ের করোনা ভাইরাস সংশ্লিষ্ট খবর দেখতে দেখতে বিরক্ত থাকেন কিংবা বিভিন্ন বিরক্তিকর গুজবের হাত থেকে রেহাই পেতে চান- তবে আপনার জন্যই এই ওয়েবসাইট। এটাকে নিকট ভবিষ্যতের একটি নিউজ পোর্টাল বলা যায়- তাই মহাকাশ জয়ের কিংবা নতুন নতুন আবিষ্কারের কথা জানতে এখুনি ভিজিট করতে পারেন এই কাল্পনিক খবরের সাইটইটি।

ভিজিট করতে ক্লিক করুন এখানে

2) Kick Ass

kick ass

এটি একটি ওয়েবভিত্তিক এপ। Launch Kick Ass নামক লাল বাটনে ক্লিক করলে ওয়েবসাইটের ওপর ক্ষুদে একটি ফায়ারিং স্পেসশিপ হাজির হবে। এই স্পেসশিপটি দিয়ে আপনি ওয়েবসাইটটিকের ভেঙ্গেচুরে ফেলতে পারবেন। তাছাড়া এটি বুকমার্ক করে অন্যান্য ওয়েবসাইট ধ্বংসের খেলাতেও মেতে উঠতে পারবেন খুব সহজে।

ভিজিট করতে ক্লিক করুন এখানে

3) Endless Horse

endless horse

নাম শুনেই বুঝতে পারছেন অসীম এক ঘোড়া নিয়ে কারবার এই ওয়েবসাইটের। খুবই সাধারণ এই সাইটে ভিজিট করলেই একটা ঘোড়াকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখবেন। এবং আপনি যত নিচেই নামেন না কেন পুরো ঘোড়াটাকে দেখতে পারবেন না।

ভিজিট করতে ক্লিক করুন এখানে

>> জেনে নিন করোনা ভাইরাসের কারণ, লক্ষণ ও প্রতিকার <<

4) Staggering Beauty

 

staggeringbeauty

অদ্ভুত এই ওয়েবসাইটে আপনি আজব ধরণের একটি ওয়েব টয়ের দেখা পাবেন। দুই চোখ বিশিষ্ট ওয়েভি টয়টাকে নিজের খেয়াল খুশিমতো নাড়াতে পারবেন। কিন্তু বেশি ঝাঁকাঝাঁকি করলেই… বাকীটা জানতে ভিজিট করুন মজার এই ওয়েব সাইটটি।

ভিজিট করতে ক্লিক করুন এখানে

5) Koalas To The Max

 

দারুণ এই ওয়েবসাইটে ভিজিট করলে প্রথমেই আপনার নজরে আসবে একটি বড় বৃত্ত। কিন্তু টাচ করলে বা মাউস দিয়ে স্পর্শ করলেই এই বৃত্ত থেকে তৈরী হবে চারটি ছোট বৃত্ত। এরকম চারটি করে বৃত্ত তৈরী করতে থাকলে আপনার চোখে পড়বে কিউট একটি কোয়ালার উপর।

ভিজিট করতে ক্লিক করুন এখানে

6) Cat Bounce

cat-bounce

এই ওয়েবসাইটে ভিজিট করলেই আপনি কিছু বেড়ালকে উপর থেকে পড়ে ড্রপ খেতে দেখবেন। চাইলে আপনি এই টু-ডি বিড়ালগুলোকে ছুঁড়ে ফেলতে পারেন। আবার বিড়ালের বৃষ্টিও উপভোগ করতে পারেন একটা বাটন চেপে।

ভিজিট করতে ক্লিক করুন এখানে

7) Rainy Mood

rainy mood

বৃষ্টির শব্দ কে না পছন্দ করে? এই ওয়েবসাইটে আপনি খুব সহজেই বৃষ্টির ঝুম শব্দ শুনতে পাবেন। পড়ালেখা, রিলাক্সেশন কিংবা মেডিটেশনের জন্য দারুণ একটি কাজের ওয়েবসাইট এটি। একবার ভিজিট করলে যে কেউই প্রেমে পড়তে বাধ্য।

ভিজিট করতে ক্লিক করুন এখানে

দারুণ ফানি এইসব ওয়েব সাইটে ভিজিট করে কোয়ারেন্টিনে থাকার সময়টাও আপনি উপভোগ করতে পারবেন পুরোদমে। তাই এখন বিরক্তিকে আনন্দে বদলে ফেলুন খুব সহজেই।

এছাড়া আরো পড়তে পারেন,
কোয়ারেন্টিনে সময় কাটানোর দারুণ ৭টি ওয়েবসাইট (পর্ব-১)
করোনা প্রতিরোধে যে ৫টি সামগ্রী আপনার এখনি দরকার!

Ready to download the Daraz App?

দারাজের সঙ্গে এখন কোয়ারেন্টিন হবে আরো আনন্দের

বাংলাদেশেও আবারো বেড়ে চলেছে কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা। করোনা ভাইরাস সহজেই মানুষে মানুষে সংক্রমণ ঘটায়- তাই সবার নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে ঘরে কোয়ারেন্টিনে ঘরে থাকাটাই আপাতত সেরা সুরক্ষা ব্যবস্থা। কিন্তু একটানা দীর্ঘ দিন ঘরে থাকাটা সত্যিই কষ্টসাধ্য কাজ। তাই আপনার নিরাপদে ঘরে থাকাকে আরো আনন্দময় করতে দারাজ বাংলাদেশ নিয়ে এলো দারাজ ডিজিটালি ইওরস ক্যাম্পেইন– এখন পরিবারকে নিয়ে ঘরে থাকা হবে আরো আনন্দময়।

চলুন এক নজরে দেখে নেয়া যাক এই কোয়ারেন্টিনে আপনার জন্য দারাজের ডিজিটাল উপহারগুলো-

মোবাইল টপ-আপ

daraz-top-up

এখন সহজেই দারাজ ওয়েবসাইটের মাধ্যমে করে নিতে পারবেন মোবাইল রিচার্জ। কোনো এক্সট্রা চার্জ ছাড়া ফ্রি অনলাইন মোবাইল রিচার্জ এর মাধ্যমে খুব সহজেই ঘরে বসে করে নিতে পারবেন মোবাইল টপ-আপ। এজন্য দারাজ মোবাইল টপ-আপ পেইজে গিয়ে আপনার প্রিপেইড মোবাইল নাম্বারটি লিখে মোবাইল অপারেটর সিলেক্ট করে কাঙ্ক্ষিত রিচার্জ এমাউন্টটি দিলেই সাথে সাথে আপনার মোবাইলে পৌঁছে যাবে রিচার্জ।

বিস্তারিত জানতে ক্লিক করুন এখানে

>> কোয়ারেন্টিনে সময় কাটানোর সেরা ৭ মজার ওয়েবসাইট (পর্ব-১) <<

গেমস ও গিফট কার্ড

games-gift-cards-daraz.com.bd

কোয়ারেন্টিনের সময়টায় ঘরে বসে যেন বোর না হন এজন্য দারাজ আপনার জন্য নিয়ে এসেছে বিনোদনের জন্য দারুণ ব্যবস্থা। দারাজের গেমস ও গিফট কার্ড কালেকশন থেকে বেছে নিতে পারবেন মনের মতো প্যাকেজটি। এখানে রয়েছে গুগল প্লে গিফট কোড যার মাধ্যমে সহজেই গুগল প্লেস্টোর থেকে কিনে নিতে পারবেন পছন্দের অ্যাপ ও এন্ড্রয়েড গেইম। এছাড়া প্লেস্টেশন, বিগো, গ্যারিনা, ইএ স্পোর্টস ও অন্যান্য গিফট কার্ডের সাথে সাথে এখানে মিলবে ফিফা, ফ্রি ফায়ার, পাবজি সহ সব সেরা মোবাইল গেইমের অনন্য ও সাশ্রয়ী কালেকশন।

বিস্তারিত জানতে ক্লিক করুন এখানে

 dara digitlly yours

এন্টারটেইনমেন্ট ভাউচার

the middle popcorn GIF by ABC Network

ঘরের মধ্যে কাটানো সময়টা যেন একটুও বোরিং না হতে পারে এজন্য দারাজ নিয়ে এসেছে ঘরে বসে পরিবারের সবার সাথে উপভোগ করার জন্য সেরা সব বিনোদন প্যাকেজ ও ভাউচার কালেকশন। আইটিউন্স গিফট কার্ড, অ্যামাজন প্রাইম, নেটফ্লিক্স সাবস্ক্রিপশন ছাড়াও এখানে আরো পাবেন স্পোটিফাই, হুলু, ইউটিউব প্রিমিয়াম, জি৫, ডিজনি প্লাস সাবস্ক্রিপশন- বাংলাদেশের সবচেয়ে সাশ্রয়ী দামে ও সহজ পদ্ধতিতে কেনার সেরা সুযোগটি নিয়ে।

বিস্তারিত জানতে ক্লিক করুন এখানে

>> কোয়ারেন্টিনে সময় কাটানোর সেরা ৭ মজার ওয়েবসাইট (পর্ব-২) <<

দারাজ গিফট কার্ড

mtv style shopping GIF by Paramount Movies

এই কোয়ান্টাইনে দারাজের গিফট কার্ড হতে পারে আপনার প্রিয়জনের জন্য সেরা একটি উপহার। দারাজের গিফট কার্ড ব্যবহার করে যে কেউ দারাজ থেকে পছন্দের কেনাকাটা করতে পারবেন সবচেয়ে সহজ পদ্ধতিতে- কোনো ধরণের পেমেন্টের ঝামেলা ছাড়াই। তাই প্রিয়জনকে তার নিজের মতো শপিং এর সেরা অভিজ্ঞতা দিতে চাইলে দারাজ গিফট কার্ডের বিকল্প হয় না। এরকম বদ্ধ সময়ে তা এই উপহার হয়ে উঠবে আরো মধুর, আরো অতুলনীয়।

বিস্তারিত জানতে ক্লিক করুন এখানে

ই-লার্নিং

e-learning-daraz.com.bd

কোয়ারেন্টিনের সময়টা শুধু বিনোদনের পেছনে ব্যয় না করে সময়টাকে কাজে লাগিয়ে নিজেকে আরো স্কিলফুল করে তুলতে চাইলে আপনার জন্য রয়েছে দারাজে ই-লার্নিং অনলাইন কোর্সগুলো। লিন্ডা, ইউডেমি, স্কিল শেয়ার প্রভৃতি অনলাইন লার্নিং প্ল্যাটফর্মের সেরা সব নির্ভরযোগ্য কোর্স এখানে পাচ্ছেন সবচেয়ে সাশ্রয়ী মূল্যে। ওয়ার্ডপ্রেস শেখা, ডিজিটাল মার্কেটিং কিংবা ড্রয়িং – সবরকমের কোর্স নিয়েই আপনার জন্য অপেক্ষা করছে দারাজের সেরা সব ই-লার্নিং কালেকশন।

বিস্তারিত জানতে ক্লিক করুন এখানে

এছাড়া আরো দেখতে পারেন,
করোনা প্রতিরোধে যে ৫ টি সামগ্রী আপনার এখনই দরকার!

Ready to download the Daraz App?

protect yourself from coronavirus

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে যেসব বিষয়ে সতর্ক হওয়া এখন সবচেয়ে বেশি জরুরী

বহির্বিশ্বে মহামারি আকার ধারণ করা করোনাভাইরাস এখন বাংলাদেশের জন্যও অতি আতঙ্কের কারন হয়ে উঠেছে। সর্বশেষ তথ্যানুসারে দেশে কয়েকজনের দেহে এই মরনঘাতি ভাইরাসের প্রমাণও মিলেছে। যদিও এখন পর্যন্ত পাওয়া তথ্য মতে ভাইরাসটি নিয়ে এত বেশি আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই, তবুও অনাকাঙ্খিত যেকোন সমস্যা এড়াতে বিশেষ কিছু প্রতিরোধ ব্যবস্থা গ্রহণের মাধ্যমেই ভয়ানক এই ভাইরাস থেকে রেহাই পাওয়া সম্ভব।

করোনাভাইরাস প্রতিকারের কিছু সহজ উপায় জেনে নেওয়া যাক ;

১। নিয়মমাফিক হাত ধোয়া

করোনার ভয়াবহ গ্রাস থেকে বাঁচতে কিছুক্ষণ পর পর খুব ভালভাবে হাত ধুতে হবে, যেহেতু হাতের সংস্পর্শে যেকোন কিছু থেকেই এই জীবাণু মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়তে পারে। তাই সাবান অথবা হ্যান্ডওয়াশ দিয়ে ভাল করে হাত ধোয়ার ফলে জীবাণু থেকে সুরক্ষা অনেকাংশেই পাওয়া সম্ভব।

২। হাঁচি-কাশিতে সতর্ক থাকা

সর্দি-কাশিতে আক্রান্ত ব্যক্তি থেকে যতটা সম্ভব দূরে থাকার চেষ্টা করুন। অসুস্থ ব্যক্তির হাঁচি বা কাশি থেকে নির্গত ড্রপলেট থেকেই করোনাভাইরাস সবচেয়ে বেশি ছড়িয়ে থাকে। এছাড়া কারোর সাথে শুভেচ্ছা বিনিময়ে সতর্কতা স্বরূপ হাত মেলানো থেকে দূরে থাকতে পারেন। এক্ষেত্রে অবশ্য হ্যান্ড গ্লাভস কার্যকরী ভূমিকা পালন করতে পারে।

৩। নিজেকে রক্ষায় সচেতন হওয়া

অতি জরুরী কোন কাজ না থাকলে ঘরে অবস্থান করাই ভাল। ঘরের বাইরে অবশ্যই ফেস মাস্ক ব্যবহার করতে হবে। সবসময় হ্যান্ড স্যানিটাইজার সাথে রাখাটা সচেতনতার একটা বড় অংশ হতে পারে।

protect yourself from coronavirus - daraz.com.bd

৪। সঠিক স্বাস্থ্যবিধি মানা

হাত দিয়ে নাক-মুখ খোঁচান থেকে বিরত থাকতে হবে। চোখ সহ মুখমন্ডলকে হাতের সংস্পর্শ থেকে দূরে রাখতে টিস্যু পেপারের ব্যবহার বাড়াতে হবে সর্বক্ষেত্রে। হাঁচি-কাশির সময়ে হাতের কবজি অথবা কনুই দিয়ে মুখ আলতো করে চেপে ধরলে অপরজনের ক্ষতির আশংকা কমে যাবে অনেকাংশে।

৫। খাবারে সাবধানতা অবলম্বন করা

সব ধরণের কাঁচাবাজার সামগ্রী বিশেষ করে শাকসবজি ভাল করে ধুয়ে রান্না করতে হবে। আর মাছ, মাংস যথেষ্ট সিদ্ধ করেই রান্না করা বাধ্যতামূলক। এমনকি ডিম পর্যাপ্ত সিদ্ধ অথবা ভাজি করেই গ্রহণ করা শ্রেয়। ফলমূল খাওয়ার আগে ভাল করে ধুয়ে নিন, পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করুন এবং ডাক্তারের পরামর্শ অনুসারে ঔষধ সেবন করুন। 

৬। ভ্রমণে সতর্ক হওয়া

যেসব দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা এখন সবচেয়ে বেশি, সেসব দেশে ভ্রমণের কোন প্ল্যান থাকলে তা অতিসত্ত্বর বাতিল করে ফেলা একান্তই কাম্য। 

>>হ্যান্ড ওয়াশ ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার সহ যাবতীয় হ্যান্ড কেয়ার সামগ্রী দেখুন এই লিঙ্কে<<

⇒ যে ৪ টি স্থানে সতর্ক না থাকলেই নয়ঃ

  • লিফটে
  • কর্মক্ষেত্রে
  • গণপরিবহনে
  • গণজমায়েতে

করোনায় অতি মাত্রায় আতঙ্ক আর নয়, প্রয়োজনীয় সচেতনতায় এখন সবচেয়ে প্রয়োজন বলে গণ্য হয় !

করোনাভাইরাস সম্পর্কে আরও জানুন এই পোস্টে ⇓

>>কিভাবে বুঝবেন আপনি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত?<<

Ready to download the Daraz App?

safest product delivery during coronavirus- daraz.com.bd

যে ৫ উপায়ে ১০০% নিরাপদ ডেলিভারি নিশ্চিত করছে দারাজ বাংলাদেশ

সারা পৃথিবীর মতো বাংলাদেশকেও আক্রান্ত করেছে করোনা ভাইরাস ঘটিত মারাত্নক সংক্রামক রোগ কোভিড-১৯। মানুষ থেকে মানুষের মাঝে ছড়িয়ে পড়া এই প্রাণঘাতী ভাইরাসকে রুখতে এখনো শতভাগ কার্যকরী ভ্যাকসিন বা ঔষধ উদ্ভাবন করা যায়নি- ফলে প্রতিরোধ ও সতর্কতাকেই এর বিরুদ্ধে সর্বোত্তম অস্ত্র হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে। পরিচ্ছনতা ও নিরাপদ সামাজিক দূরত্ব মেনে কোয়ারেন্টিন বা বিচ্ছিন্ন জীবন যাপন করার জন্য জনগণকে কঠোরভাবে সতর্ক করা হয়েছে সরকার থেকে।

কোয়ারেন্টিনে থাকতে হলেও নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন পণ্যের জন্য যেন বাইরে বের হতে না যেতে হয়- এজন্য সারা বিশ্বের মতো বাংলাদেশেও মানুষের আগ্রহ বেড়ে গেছে অনলাইন শপিং এ। কিন্তু একজন সচেতন ক্রেতার মনে এই প্রশ্ন ওঠা স্বাভাবিক যে- এসময়ে দেশের বৃহত্তম অনলাইন শপ দারাজ আসলে কতটুকু নিরাপদ? খুবই সময়োপযোগী এই প্রশ্নের জবাব খুঁজতেই আজকের এই লেখা।

চলুন একনজরে দেখে নেয়া যাক অনলাইন ক্রেতাদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে দারাজের নেয়া সতর্কতামূলক পদক্ষেপসমূহ-

১) অধিকাংশ কর্মচারীদের ওয়ার্ক ফ্রম হোম ও সামাজিক দূরত্ব মেনে চলা

safest product delivery during coronavirus- daraz.com.bd

দেশের বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনায় করোনা ভাইরাস ঘটিত রোগ যাতে ছড়াতে না পারে এজন্য দারাজের অধিকাংশ কর্মচারীই ঘরে বসে কাজ করে যাচ্ছেন ক্রেতাদের কথা মাথায় রেখে। এছাড়া অন্য কর্মাচারীরা ওয়ার্কপ্লেসে প্রয়োজনীয় সামাজিক দূরত্ব ও অন্যান্য সতর্কতা মেনে চলছেন।

২) সর্বোচ্চ সতর্কতায় অর্ডার প্যাকেজিং

safest product delivery during coronavirus- daraz.com.bd

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সুপারিশকৃত পরিচ্ছন্নতা মেনে সর্বোচ্চ সতর্কতায় সম্পন্ন করা হচ্ছে দারাজের প্রোডাক্ট প্যাকেজিং। এক্ষেত্রে নিরাপদ প্যাকেজিং ম্যাটেরিয়ালের মাধ্যমে ও দারাজ হাব, ওয়্যার হাউস বা সর্টিং সেন্টারে সর্বোচ্চ পরিচ্ছন্নতা নীতিমালা মেনে গ্রাহকের কাছে পৌঁছে দেয়া হচ্ছে সেরা পণ্যটি।

>> কোয়ারেন্টিনে সময় কাটানোর দারুণ ৭টি ওয়েবসাইট (পর্ব-১) <<

৩) দারাজ কর্মচারী ও এক্সপ্রেস রাইডারদের নিয়মিত হেলথ চেকাপ

safest product delivery during coronavirus- daraz.com.bd

দারাজ সবসময়ই তার গ্রাহক ও কর্মচারীদের নিরাপত্তাকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে থাকে। তাই যেসব কর্মচারী, কর্মকর্তা অফিসে আসছেন কিংবা যেসব রাইডার ডেলিভারি নিয়ে যাচ্ছে- সবার আগে তাদের হেলথ চেকাপ করে তারপর তাদেরকে ডেলিভারি প্রদানের অনুমতি দেয়া হচ্ছে।

৪) ডেলিভারি সংশ্লিষ্ট সব কর্মচারীদের সুরক্ষা উপকরণ ব্যবহার

safest product delivery during coronavirus- daraz.com.bd

ওয়্যার হাউস ও লজিস্টিক টিমের সদস্যরা সম্পূর্ণ প্রস্তুতি নিয়েই নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন ক্রেতাদের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে। নিয়মিত তাপমাত্রা মনিটরিং, মাস্ক ও গ্লাভস পরে নিজেদের সেরাটা দিয়ে যেতে বদ্ধ পরিকর এসব দারাজ হিরোরা।

>> কোয়ারেন্টিনে সময় কাটানোর দারুণ ৭টি ওয়েবসাইট (পর্ব-২) <<

৫) গ্রাহকদের দরজায় ডেলিভারিসহ বিভিন্ন বাড়তি সতর্কতামূলক ব্যবস্থা

safest product delivery during coronavirus- daraz.com.bd

safest product delivery during coronavirus- daraz.com.bd

যদিও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা প্যাকেজিং এর মাধ্যমে ভাইরাস ছড়ানো সম্পর্কে সুনির্দিষ্ট কিছু বলেনি, তবু দারাজের রাইডারদেরকে বাড়তি সতর্কতা অবলম্বনের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এক্ষেত্রে ডেলিভারিটি সরাসরি হাতে না দিয়ে আক্ষরিক অর্থেই গ্রাহকের দোরগোড়ায় দিতে বলা হয়েছে। এছাড়া কাগজের নোটের বদলে ক্রেতাদের দারাজের সহজ ডিজিটাল পেমেন্ট ব্যবস্থা অনুসরণের জন্যও উৎসাহিত করা হচ্ছে।

সবশেষে বলা যায়, ক্রেতাদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আন্তরিকভাবে কাজ করে চলেছে দারাজ বাংলাদেশ। সেইসাথে অর্ডারকৃত ডেলিভারিটি যেন দ্রুততম সময়ে ক্রেতাদের কাছে পৌঁছায় সে ব্যাপারেও বিশেষ দৃষ্টি রাখছে দারাজ কর্তৃপক্ষ।

এছাড়া আরো দেখতে পারেন,
জেনে নিন করোনা ভাইরাসের কারণ, লক্ষণ ও প্রতিকার

Ready to download the Daraz App?

ডায়াবেটিস ও করোনা

নভেল করোনা থেকে ডায়াবেটিস রোগীদের বাচার সহজ উপায়

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে যারা মৃত্যুবরণ করেছেন তাদের বেশির ভাগই দীর্ঘমেয়াদী রোগ যেমন- ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগসহ ফুসফুসের অসুখ ইত্যাদি সমস্যায় ভুগছিলেন। বিশেষজ্ঞদের মতেও, ডায়াবেটিসে আক্রান্ত রোগীর ক্ষেত্রে কোভিড-১৯ এর ঝুঁকি অন্যদের তুলনায় বেশি।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সমীক্ষা অনুযায়ী, ২০১৪ সালের তথ্য অনুসারে পৃথিবীতে ডায়াবেটিসে আক্রান্তের সংখ্যা ৪২২ মিলিয়নেরও বেশি। বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, ২০১৯ সালে সারা পৃথিবীতে ২৩ কোটি ২০ লাখ ডায়াবেটিস রোগী রয়েছেন।

নিউইয়র্ক পোস্টের এক প্রতিবেদনে উঠে এসেছে, করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে বেশি ভর্তি হয়েছেন ডায়াবেটিস, ফুসফুস এবং হৃদরোগের মতো দীর্ঘস্থায়ী রোগীরা। এমনকি নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে থাকা পাঁচজনের মধ্যে অন্তত একজন এসব দীর্ঘমেয়াদী রোগে আক্রান্ত। রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ কেন্দ্রসমূহের সর্বশেষ প্রতিবেদনেও উঠে এসেছে এমন তথ্য।

যুক্তরাষ্ট্রের সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন (সিডিসি)’র রিপোর্ট অনুসারে, করোনায় আক্রান্ত ৭ হাজার ১৬২ জনের মধ্যে ৩৭ দশমিক ৬ শতাংশই কোনো না কোনো দীর্ঘমেয়াদী রোগে ভুগছিলেন।

আর রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে দেখা গেছে, নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে থাকা ৭৮ শতাংশ করোনা রোগীর মধ্যে ডায়াবেটিসে আক্রান্ত ছিলেন ৩২ শতাংশ, হৃদরোগে ২৯ শতাংশ, ফুসফুসের দীর্ঘস্থায়ী রোগে ২১ শতাংশ আর ১২ শতাংশেরও বেশি রোগী কিডনি রোগে আক্রান্ত ছিলেন। অন্যদিকে মাত্র ৯ শতাংশ রোগীর মধ্যে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা উন্নত ছিল।

কেন ডায়াবেটিসে আক্রান্তরা বেশি ঝুঁকিতে?

বিশেষজ্ঞদের মতে, ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে না থাকলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার উপর নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। এর ফলে যে কোনো সংক্রমণের আশঙ্কা দ্বিগুণ বেড়ে যায়। এমনকি করোনার ঝুঁকিও।

এ সময় যা করা উচিত

  1.  দিনে অন্তত ৫ থেকে ৬ বার, কমপক্ষে ২০ সেকেন্ড ধরে হাত ধুতে হবে। স্যানিটাইজারের চেয়ে সাবান উত্তম।
  2.  রান্না, পরিবেশন ও খাওয়ার আগে হাত ভালো করে ধুয়ে নিন। নিজের ব্যবহৃত বাসনপত্র এমনকি কাপড়ও আলাদা করতে হবে।
  3.  পর্যাপ্ত স্বাস্থ্যকর খাবার যেমন- শাক, সবজি, ফল, মুরগির মাংস, মাছ, ডিম, ব্রাউন রাইস, হোল গ্রেন বা মাল্টি গ্রেন আটা ইত্যাদি খেতে হবে।
  4.  এ সময় হাতের কাছে মিষ্টিজাতীয় খাবার রাখতেও ভুলবেন না যেন! যদি হঠাৎ ডায়াবেটিস খুব কমে যায়, তখন কাজে আসবে।
  5.  প্রয়োজনীয় ওষুধ ও ইনসুলিন পর্যাপ্ত কিনে রাখুন। মেশিনে সুগার মাপার স্ট্রিপও কিনে রাখুন। এতে করে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে থাকবে।

তথ্যসূত্র: আল জাজিরা

করোনা সচেতনতা নিয়ে আরও পড়ুনঃ

best ways to fight your stress-daraz.com.bd

11 Best Ways to Cope When You Are Feeling Stressed

Stress builds up when you’re stuck at home and find yourself unusually free. And we can all agree that stress is bad for you. So how do we address something like this, without having to leave our homes? We do this by de-stressing at home!</p?

To help you relax and help you get rid of all that stress, we’ve compiled for you a list of fun stress relief activities that you’d enjoy and also find effective!

So let’s get started, shall we?

1. YOGA for Your Mind and Body

Yoga is great to relax your mind and body. The poses you should definitely include in your practice are the child pose, crocodile pose, cat-cow pose and legs up the wall pose. Practice these poses and do them for around 2-3 minutes. You’ll see how much it relaxes you!

Chill Yoga GIF by MOST EXPENSIVEST

And if you’re more of an exercise person, then here are some exercises you can try out to achieve the same relaxation.

2. MUSIC is Always a Good Idea

No, we’re not saying to listen to music that’s known to be relaxing. We’re saying you listen to music that you find relaxing! Make a playlist of all these songs and play it whenever stress is starting to take over.

Headphones Jamming GIF by SpongeBob SquarePants

3. MEDITATE Away Your Stress!

Meditation can be so realizing if you do it right. Just sit crossed legs, close your eyes and focus on breathing. Concentrate on your breathing in and out, and feel your heart beating. Be mindful of any thoughts that you get and then consciously realize that you are not your thoughts! And then, let go of your thoughts.

Meditation Self Care GIF by MOODMAN

4. SKETCH & PAINT Your Imagination

Arts is a fantastic stress reliever. And this doesn’t mean you need any exceptional art skills to go about this. If you find yourself in a creative mood, grab a paintbrush or sketch pen (or pencil) and start portraying your thoughts on paper. Paint or sketch whatever comes to your mind. You could also try adult coloring books for this.

Designing Kotonoha No Niwa GIF

5. Witness the SUNRISE and SUNSET

This is your chance to take advantage of being at home! Take time to witness the beautiful sunrise and sunset. Soaking in the morning sun can be great for your body. Vitamin D relaxes the blood vessels and helps enhance circulation. As for sunset, simply watching the sun go down can be so therapeutic – that’s reason enough!

Sunrise GIF

>> Best Hygiene Practices for Your Safety <<

6. Enjoy BOARD GAMES

Remember when you loved playing board games? This is an opportunity to get back in the game! Get your family together and compete in some fun board games. You’ll be surprised by how much you’re going to love the entertainment and family bonding that a simple board game can bring!

Television Friends GIF

7. WARM SHOWERS & BATHS Are Very Soothing!

Whenever you feel your muscles and nerves tense up, we suggest you take a warm shower or bath. The warm water really relaxes the body and if you mix it up with a cold shower too, then you’ll have the most relaxing experience! This hot/cold shower is called a contrast shower is used by athletes and fitness professionals to relieve sore muscles and fatigue. You can also decorate the bathroom with candles to create a relaxing ambiance.

Relaxed Tv Show GIF

8. Start WRITING Down Your Thoughts

Writing has helped many, and it might help you too. If stress is starting to build up, just pick up a pen and start writing down your thoughts. More often than note, you’ll notice your mind relaxing as you pen down your stress.

You Are Beautiful Write GIF

9. Play VIDEO GAMES!

If you’re a gamer, then playing video games is perhaps one of your favorite things on Earth. And the best part is that this can actually be a stress-relieving activity for people like yourselves! So get back in touch with your mobile/PC/console games and let the healing begin!

Season 6 Gamer GIF by ABC Network

10. Indulge in PLEASANT MEMORIES

Research shows that indulging in positive and good memories can be great for your mind and body. So if your thoughts are weighing you down, start thinking about all the good things that you’ve been through. Perhaps, pop out some favorite pictures and think back to the good days. And while you’re at it, also remind yourself that this too shall pass.

Mom And Dad Family GIF by Marshmello

11. DE-CLUTTER!

This is so important, dear friends! The more clutter you live in, the more stressful your ambiance becomes. So start cleaning up! Because you have time, you could actually go for a deep-clean too. Empty every drawer and discard what’s not needed, donate what’s extra and organize what’s going back in the space. De-cluttering will really create a positive vibe in the room and the overarching aura will cheer you up!

Cleaning Up The Good Place GIF by NBC

Get started with these stress-relieving activities and you’ll see that you’re learning to deal with stress like a boss!

You may also like,
Coronavirus: Causes, Symptoms and Remedies

Ready to download the Daraz App?

করোনা থেকে বাচার উপায়

গুরুত্বপূর্ণ ৫ টি টিপস – করোনা থেকে নিরাপদ থাকার প্রস্তুতি

করোনাভাইরাস দিনকে দিন বিশ্বে ভয়ংকর রূপ নিচ্ছে। এ রোগের কারণে একে একে মৃত্যুর দুয়ারে গেছেন ১১ হাজারের বেশি মানুষ। মহামারি এ রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন অনেকেই। দেখা যাচ্ছে, এ রোগে দ্রুত আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধদের মধ্যেই বেশি। চীন থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী বৃদ্ধদের, বিশেষ করে যাঁরা দীর্ঘস্থায়ী চিকিৎসা নিচ্ছেন, তাঁদের করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বেশি। এরই মধ্যে করোনায় সবচেয়ে বেশি মারা গেছেন বয়স্ক ব্যক্তিরাই।

সম্প্রতি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রসহ বিশ্বের অনেক দেশেই বলা হয়েছে, ৬০ বছর বা তার বেশি বয়সের ব্যক্তিরা, যাঁদের দৈহিক বিভিন্ন সমস্যা রয়েছে, তাঁরা যেন জনসমাগম এলাকা এড়িয়ে চলেন। তাঁরা যেন বাড়িতে থাকেন। বয়স্কদের সাবধানে কীভাবে রাখবেন, এর জন্য কয়েকটি পরামর্শ দেওয়া হয়েছে WHO এর পক্ষ থেকেঃ

০১। ওষুধ ও প্রয়োজনীয় জিনিস মজুদ রাখা

দরকারি ওষুধ ও প্রয়োজনীয় জিনিস আগে থেকে কিনে বাসায় রাখতে হবে। বাসার বৃদ্ধরা দুর্বল ও দীর্ঘদিন অসুস্থ হলে আমেরিকার সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন (সিডিসি) সুপারিশ করেছে, বেশ কিছু সপ্তাহের ওষুধ ও অন্যান্য জিনিস বাড়িতেই যেন রাখা হয়। সিডিসি তাদের নাগরিকদের বলেছে, প্রয়োজনীয় খাদ্য, ওষুধ এবং অন্যান্য চিকিৎসা পণ্যের সরবরাহগুলো আগে থেকে মজুত করে রাখুন। প্রিয়জনদের কী কী ওষুধ প্রয়োজন, তার খেয়াল পরিবার যেন রাখে। বাসার বয়স্কদের দিকে একটু সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিন।

০২। পরিষ্কার–পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখুন

পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকতে হবে। ২০ সেকেন্ড ধরে নিজেদের হাত সাবান–পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে। এই পরামর্শ করোনাভাইরাস সচেতনতার জন্য সবাই দিচ্ছেন। যদি হ্যান্ডওয়াশ-পানি না থাকে, সে ক্ষেত্রে স্যানিটাইজার দিয়েও হাত ভালোভাবে ঘষে নিতে হবে। বাড়ি ও কর্মক্ষেত্রের জায়গাও যেন পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকে, এ বিষয়ে নিশ্চিত থাকতে হবে। নিয়মিত বাড়ি ও কাজের জায়গা পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করুন। এমনকি ইলেকট্রনিকসের জিনিসগুলোও নিয়মিত পরিষ্কার করুন।

০৩। কোনো জিনিস শেয়ার নয়

যৌথ পরিবারে সবাই একসঙ্গে থাকেন। একেকজনের ঝুঁকি একেক ধরনের হতে পারে। এ রকম অবস্থায় সবারই ঝুঁকি রয়েছে বলেই ধরে নিতে হবে। একটা গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার হলো, একই পরিবারে বৃদ্ধ ও শিশুরা থাকে। তাদের এই সময়ে বা মাঝেমধ্যে সর্দি-কাশি হয়। সে ক্ষেত্রে পরিবারের উচিত ব্যক্তিগত সব জিনিস এই মুহূর্তে আলাদা ব্যবহার করা। যেমন খাবার, পানির বোতল, বাসন-কোসন। প্রয়োজন হলে বাড়ির একটি আলাদা ঘরে অসুস্থ সদস্যকে রেখে দিতে হবে। এ ক্ষেত্রে আলাদা শৌচাগারের ব্যবস্থাও করলে আরও ভালো হয়।

অনেক বৃদ্ধই আছেন, যাঁরা একা একা থাকেন। সে ক্ষেত্রে কীভাবে তাঁরা নিজেদের যত্ন নেবেন, সে বিষয়ে আগে থেকে পরিকল্পনা করে নিতে হবে। ফোন বা ই–মেইল কীভাবে ব্যবহার করবেন, জরুরি ফোন নম্বর, চিকিৎসকের নম্বর সব যেন হাতের কাছে থাকে।

০৪। আতঙ্ক নয়, আলোচনা করুন

অযথা আতঙ্কিত না হয়ে কোভিড-১৯ সম্পর্কে প্রতিবেশী, পরিবার-স্বজনদের সঙ্গে নিয়ে আলোচনা করতে হবে। কেউ আক্রান্ত হলে আগাম প্রস্তুতি কী হবে, তা নিয়ে পরিকল্পনা করে রাখুন। কোভিড-১৯ সম্পর্কে যতটা সম্ভব সচেতনতা বাড়াতে হবে, বিশেষ করে বয়স্কদের ক্ষেত্রে এটা আরও প্রয়োজন। তাঁরা যাতে কোনোভাবেই বাড়ির বাইরে না বের হন, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। বৃদ্ধদের আশ্বস্ত করুন যে এ রোগে ভয়ের কিছু নেই।

০৫। চিকিৎসকদের পরামর্শ মানুন

করোনা নিয়ে আতঙ্ক না বাড়িয়ে চিকিৎসক-বিশেষজ্ঞদের নির্দেশ মেনে চলাই শ্রেয়। কিছুদিন বৃদ্ধদের বাড়ির বাইরে বের হতে না দিয়ে বাড়িতেই রাখতে হবে। বিভিন্ন ধরনের ফিট থাকার শরীরচর্চা এই সময় তাঁরা করতে পারেন। স্বাস্থ্যকর খাবার এ সময় খুব প্রয়োজন। সর্দি-কাশি হলে তা এড়িয়ে না গিয়ে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

করোনার ভয়ে বিশ্ববাসী রীতিমতো একঘরে হয়ে রয়েছেন। বিশ্বের অনেক দেশ তাদের শহরগুলো লকডাউন করেছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (WHO) নিজেদের ওয়েবসাইটে কোভিড-১৯ নিয়ে বিস্তারিত জানাচ্ছে প্রতিনিয়ত। সেখানে এ রোগের বিষয়ে সব তথ্য পাওয়া যাচ্ছে।

তথ্যসূত্র: নিউইয়র্ক টাইমস, সিএনএন

করোনা সচেতনতা নিয়ে আরও পড়ুনঃ

buy hygiene products from daraz.com.bd

করোনা থেকে বাঁচতে যে ৫ টি সামগ্রী আপনার এখনই দরকার!

বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে বেশি আতঙ্কের কারণ করোনা ভাইরাস এখন বাংলাদেশে হানা দিতে শুরু করেছে তুমুল শক্তিতে। এমন ভয়ানক পরিস্থিতে পর্যাপ্ত সতর্কতা কিংবা সচেতনতার অভাবে মূল্য দিতে হতে পারে একেকটি মূল্যবান জীবনের। তাই নিজেকে সহ পরিবারের সকল আপনজনকে এই বিপজ্জনক করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষিত রাখতে এখন দরকার এমন কিছু সামগ্রী, যেগুলো দামে যেমন সস্তা, গুণে তার থেকে বেশি কার্যকরী।

করোনা সুরক্ষায় অতি গুরুত্বপূর্ণ ৫ টি সামগ্রী দেখে নিন একনজরেঃ

সাবান সহ অন্যান্য জীবাণু নাশক

buy soap from daraz.com.bd

 

 

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে করোনা ভাইরাস থেকে বাঁচতে হলে নিজের ঘরই এখন সবচেয়ে উপযুক্ত আশ্রয়স্থল। তবে এই ঘর ও এর সংশ্লিষ্ট আসবাবপত্র যদি জীবাণু মুক্ত না থাকে, তাহলে বিপদের আশঙ্কা বেড়ে যায় বহুলাংশে। তাই নিজের বাসা ও আশেপাশের জায়গা জীবাণু মুক্ত রাখতে চাই ভাল মানের অ্যান্টিসেপ্টিক তরল, যা আপনাকে ও পরিবার-পরিজনকে সকল ভাইরাস থেকে সুরক্ষা দিয়ে যাবে। প্রয়োজনে মানসম্মত সাবান ব্যবহার করেও নিজেকে জীবাণু মুক্ত রাখতে পারেন।

হ্যান্ড স্যানিটাইজার

buy hand sanitizer from daraz.com.bd

 

 

 

ধরুন আপনি কাজ শেষে বাসায় ফেরত আসলেন অথবা কর্মস্থলে বা যেকোন নতুন পরিবেশে গেলেন, বাইরে যেকোন বস্তুর সংস্পর্শে আপনার হাতে অসংখ্য জীবাণুর আক্রমণ হয়ে থাকবে। বস্তুত করোনা ভাইরাস ঠিক এভাবেই মানুষ থেকে মানুষে ছড়িয়ে থাকে। তাই প্রতিবার ঘরে ঢোকার সাথে সাথেই একটি হ্যান্ড স্যানিটাইজার বা হ্যান্ড র‍্যাব আপনার জন্য খুবই দরকার।

হ্যান্ড ওয়াশ

buy hand wash from daraz.com.bd

 

 

 

 

আপনি যদি বাসাতেও থাকেন, বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন বস্তু ধরার ফলে আপনার হাতে করোনার উপস্থিতি মোটেও অস্বাভাবিক কিছু নয়। ঠিক একারনে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ভাষ্য মতে হ্যান্ড ওয়াশ ব্যবহারের মাধ্যমে কিছুক্ষণ পর পর অন্তত ২০ সেকেন্ডের মত সময় নিয়ে খুব ভাল ভাবে দুই হাত কবজি পর্যন্ত ধুতে হবে।

 

>>যেভাবে করোনার প্রতিরোধ আপনিও করতে পারবেন খুব সহজে<<

হ্যান্ড গ্লাভস

order hand gloves from daraz.com.bd

 

 

 

 

নিজেকে সন্তোষ জনক পর্যায়ে সুরক্ষিত রাখার জন্য এখন এক জোড়া হ্যান্ড গ্লাভস মোটামুটি যথেষ্ট। এক্ষেত্রে সার্জিক্যাল হ্যান্ড গ্লাভস সহ বিভিন্ন উন্নত মানের হ্যান্ড গ্লাভস আপনার চাহিদার তালিকায় থাকতে পারে।

টিস্যু পেপার

order tissue paper from daraz.com.bd

 

 

 

যেকোন মূহুর্তে হাঁচি বা কাশির সময়ে হাতের কাছে টিস্যু পেপার থাকাটা এখন খুব বেশি দরকার। বিশেষ করে হাঁচি-কাশির শিষ্টাচার অনুসারে টিস্যু দিয়ে নাক ও মুখ চেপে ধরাটা উত্তম, যার কারনে আপনার জীবাণু বাইরে খুব বেশি ছড়াতে পারবে না। তবে মনে রাখতে হবে একটা টিস্যু কোন ভাবেই একবারের অধিক ব্যবহার উপযোগী নয়।

ঘরে থাকুন, নিরাপদ থাকুন

আরও পড়তে পারেন,

>>করোনার লক্ষণ চেনার উপায় কি এবং এর প্রতিকার কি?<<

Ready to download the Daraz App?

stay safe from corona/covid-19 and let daraz deliver

যে ৫টি কাজ করলে নভেল করোনা থেকে সুস্থ থাকা যাবে

কঠিন এক সময় পার করছে বিশ্ববাসী। নভেল করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) হানায় বিপর্যস্ত পুরো বিশ্ব। এখন পর্যন্ত শতভাগ কার্যকর প্রতিষেধক আবিষ্কার না হওয়াতে সতর্কতা-সচেতনতাই এই প্রাণঘাতি ভাইরাস থেকে বাঁচার একমাত্র পথ। বিশ্বের প্রায় সব দেশেই চলছে ধাপে ধাপে লকডাউন। এক দেশের সঙ্গে আর এক দেশের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন। বন্ধ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। অফিস-আদলত বন্ধ থাকলেও স্বল্প পরিসরে কাজ চলছে বাড়ি থেকে।

করোনায় সুস্থ থাকার অতি গুরুত্বপূর্ণ ৫ টি উপায় দেখে নিন একনজরে

০১। স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়া

সুস্থ থাকার প্রধান উপায় হলো পুষ্টিযুক্ত স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়া। এতে শরীরের রোগ প্রতিরোধ করার ক্ষমতা বাড়বে এবং ঠিকভাবে কাজ করবে।

০২। মদ্যপান সীমার মধ্যে রাখা

করোনাভাইরাসের এই সময়ে সুস্থ থাকতে হলে মদ্যপানে দায়িত্বশীল হতে হবে। সীমার বাইরে পান করা উচিৎ নয়। চিনিযুক্ত পানীয় পরিহার করতে হবে।

০৩। ধূমপান করা যাবে না

সুস্থ থাকতে হলে ধূমপান করা যাবে না। কোভিড ১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত হলে ধূমপানের কারণে মারাত্মক রোগগুলো বৃদ্ধি পায়।

০৪। শারীরিক কসরত করা

সুস্থ থাকার জন্য শারীরিক কসরত করার কোনো বিকল্প নেই। যদি বাইরে যাওয়ার অনুমতি থাকে তাহলে প্রাপ্ত বয়স্ককে ৩০ মিনিট ও শিশুদের ১ ঘণ্টা দৌড়াতে হবে। আর নাহয় বাসায়ই বিভিন্ন ব্যায়াম-ইয়োগা করা যেতে পারে। অফিসের কাজ বাসায় করলে এক পজিশনে না করা। ৩০ মিনিট পরপর তিন মিনিটের বিরতি নেওয়া।

০৫। মানসিক স্বাস্থ্যের দিকে নজর দেওয়া

মহামারির এই সময়ে মানসিকভাবে শক্ত থাকা খুবই জরুরি। এই সময়ে মানসিক অশান্তি থাকা, চাপ অনুভব করাটা স্বাভাবিক। পরিচিত ও বিশ্বস্তজনের সঙ্গে কথা বলে মানসিক অশান্তি থেকে দূরে থাকা যেতে পারে। কমিউনিটির অন্য মানুষদেরকে সাধ্য অনুযায়ী সহোযোগিতা করা। প্রতিবেশি, বন্ধু ও পরিবারের সদস্যদের খোঁজখবর রাখা। গান শোনা, বই পড়া ও গেম খেলা যাতে পারে। যদি সমস্যা হয় তাহলে সংবাদ দেখা থেকে দূরে থাকা। দিনে একবার কিংবা দুইবার নির্ভযোগ্য গণমাধ্যম থেকে দেশ-বিদেশের খোঁজ-খবর নিলেই হবে।

করোনা নিয়ে আরও জানুনঃ

>>করোনার লক্ষণ ও প্রতিকার

order from daraz boishakhi mela campaign

নববর্ষে বৈশাখী সাজ | ফ্যাশনে পহেলা বৈশাখ ১৪২৮

নানা রঙে, নানা রুপে আবার এলো পহেলা বৈশাখ

দেখতে দেখতে আরেকটা বছর চলে গেল। চলে এলো ১৪২৮ বঙ্গাব্দ।  প্রকৃতি যেন অধীর আগ্রহে গ্রীষ্মের আগমনের অপেক্ষা করছে। একটু খেয়াল করলেই দেখা যাবে গাছে গাছে ফুটেছে আমের মুকুল। রোদের তাপটাও যেন আস্তে আস্তে প্রখর হয়ে উঠছে। প্রকৃতির সাথে চলছে মানুষেরও নিজেদেরকে নতুন আঙ্গিকে দেখার প্রস্তুতি। পহেলা বৈশাখ উপলক্ষ্যে অনেকেই হয়ত এরই মধ্যে বন্ধুদের সাথে ঘুরে বেড়ানোর পরিকল্পনা করেছেন, আবার অনেকেই হয়ত পরিবার পরিজনদের সাথে নিরিবিলি সময় কাটানোর কথা ভাবছেন। প্ল্যান যাই হোক, উৎসবের আমেজ অনুভব করতে সাজসজ্জা আর পোশাক-আশাক বিশাল একটা ভূমিকা পালন করে। তাই বৈশাখী ফ্যাশনের নানান আইডিয়া নিয়ে সাজানো হয়েছে এই পোস্ট।

pohela boishakh online

বছরের প্রথম দিন নারীরা বেছে নিতে পারেন হালকা রঙের কটন, কোটা বা সিল্কের আটপৌরে মেয়েদের শাড়ি কিংবা সালোয়ার কামিজ। এছাড়া ফ্যাশন সচেতন তরুণীরা পরতে পারেন কুর্তি। গ্রীষ্মের তীব্র দাবদাহে এসব রঙ এনে দিতে পারে স্বস্তি। বেছে নিতে পারেন হালকা গোলাপি, হালকা সবুজ কিংবা চিরাচরিত লাল পেড়ে সাদা শাড়ি। দিনের বেলার সাজের জন্য ট্রাই করতে পারেন ট্রেন্ডি “নো-মেকাপ” মেকাপ। হালকা কমপ্যাক্ট পাউডার, মাস্কারা, ব্লাশন এবং ন্যুড লিপস্টিক দিয়ে পেতে পারেন স্নিগ্ধ, নমনীয় একটা লুক। যদি গ্ল্যামারাস লুক চান সেক্ষেত্রে রাতের বেলার অনুষ্ঠানে জমকালো সাজে হয়ে উঠতে পারেন অনন্যা। ব্যবহার করতে পারেন আইশ্যাডো, হাইলাইটার এবং গাঢ়  লিপস্টিক আর পরতে পারেন জামদানী বা কাতান শাড়ি।

pohela boishakh mela

হালকা গহনা আপনার সাজ পরিপূর্ণ করে তুলবে। পরতে পারেন হাতভর্তি কাঁচের চুড়ি আর সাথে সিলভার বা গোল্ড ঝুমকা, ছোট- বড় রিং, সিম্পল চেন বা নেকলেস। সাজে কিছুটা অন্য মাত্রা যোগ করতে চুলে জড়িয়ে নিতে পারেন একগুচ্ছ সুবাসিত ফুল কিংবা হেয়ার স্ট্রেটনার বা কার্লার দিয়ে করে নিতে পারেন সুন্দর সব হেয়ারস্টাইল। এই ছাড়া পোশাকের অনুষঙ্গ হিসেবে মানানসই ব্যাগ, আরামদায়ক জুতো, সানগ্লাস আর মিষ্টি গন্ধের পারফিউম নাহলে আউটফিট অপূর্ণ রয়ে যায়। তাছাড়া হাতের ঘড়ির ডিজাইন দেখে পছন্দ করতে পারেন সেরা ঘড়িটিও।

boishakhi panjabi fashion

বছরের প্রথম দিন নারীদের পাশাপাশি পুরুষরাও নানান রকম সাজপোশাকে নিজেদের রুচি উপস্থাপন করতে পারেন। এ ক্ষেত্রে বেছে নিতে পারেন পাঞ্জাবি, কিংবা একটু ভিন্নধর্মী ফতুয়া বা খাটো পাঞ্জাবী এবং সাথে পরতে পারেন ক্লাসিক জিনস বা পায়জামা। তবে এক্ষেত্রে পাঞ্জাবি ডিজাইন ২০২১ ছবি দেখে দারাজ থেকে সহজেই সংগ্রহ করতে পারেন আপনার পছন্দের পাঞ্জাবিটি।  ট্রেডিশনাল লুকে ভিন্নতা আনতে বেছে নিন স্টাইলিশ ঘড়ি, সানগ্লাস আর স্লিপার। ব্যবহার করতে পারেন পছন্দের পারফিউম। নানান ধরনের হেয়ার জেল এবং হেয়ার মুজ ব্যবহার করে পুরুষরাও করতে পারেন নানান হেয়ারস্টাইল।

যদি এখন আপনার মনে হয়, নিজেকে সাজানোর অনেক প্রোডাক্টই আপনার কাছে নেই আর হাতে অঢেল সময়ও নেই দোকানে দোকানে ঘুরে কেনা কাটা করার মতো তাহলে একদম মন খারাপ না করে চলে যান দারাজ ওয়েবসাইটে (daraz.com.bd) এবং ঘরে বসে এক ক্লিকেই সেরে ফেলুন পহেলা বৈশাখ ১৪২৮ কে স্বাগত জানানোর প্রস্তুতি। সেরা দামে সেরা পণ্যগুলো আপনার জন্যই নিয়ে এসেছে দারাজ অনলাইন শপ।

পহেলা বৈশাখ সম্পর্কে আরও পড়ুনঃ
দারাজের সাথে হোক এই বৈশাখের প্রস্তুতি

css.php